Advertise top
খেলা

বিশ্বকাপে বাবার পরে ছেলের খেলা

বরিশাল নিউজ স্পোর্টস ডেস্ক

প্রকাশ : ০৬ অক্টোবর ২০২৩, ০৯:১০ পিএম

বিশ্বকাপ ‘৯৬ থেকে ‘২৩, বাবার পরে ছেলের খেলা
ছেলে বাস ডি লিডি, বাবা টিম ডি লিডি। ছবি: অনলাইন

 

হায়দ্রাবাদের রাজীব গান্ধী স্টেডিয়ামে আজ  পাকিস্তানের বিপক্ষে খেলছে নেদারল্যান্ডস। এই একাদশে আছেন বাস ডি লিডি।শুধু একাদশে তার উপস্থিতি ইতিহাসের পাতায় এক গল্প হয়ে উঠলো।

 

কেন গল্প? কারণ তার বাবা টিম ডি লিডিও ১৯৯৬ এর ওয়ানডে বিশ্বকাপে নেদারল্যান্ডসের জার্সি পরে মাঠে নেমেছিলেন। তারা হবেন ওয়ানডে ক্রিকেট বিশ্বকাপ ইতিহাসের সপ্তম বাবা-ছেলে জুটি।

 

বিবিসি বাংলা বাবা-ছেলে জুটির গল্প বলেছেন তাদের প্রতিবেদনে। গল্পের শুরু ১৯৯৬ সালে। সে বছরটি ছিল নেদারল্যান্ডসের ক্রিকেট ইতিহাসের প্রথম বিশ্বকাপ। সেবার টিম ডি লিডির বিশ্বকাপ অভিষেক ছিল নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ভারতের ভাদোদারায়। ছেলে বাস ডি লিডিও মাঠে নামবেন ভারতেই, বিশ্বকাপ অভিষেক ম্যাচে।

 

টিম ডি লিডি ছিলেন নেদারল্যান্ডসের তারকা ক্রিকেটার,বাবার মতো বাস ডি লিডিও এখন ডাচ ক্রিকেট দলের সবচেয়ে বড় তারকা।

 

ফাস্ট বোলিং অলরাউন্ডার বাসের পারফরম্যান্সও নজরকাড়া, শেষ পাঁচ ম্যাচের রান- ১২৩, ৩৯, ৪১, ৩৩, ৪১*।

 

গত বছর পাকিস্তানের বিপক্ষে ৮৯ রানের একটি ইনিংসও খেলেছেন এই অলরাউন্ডার।

 

একই ম্যাচে ১০০ রান ও ৫ উইকেট নেয়া বিরল এক রেকর্ডও রয়েছে তাঁর নামের পাশে। এই তালিকায় আছেন ক্যারিবিয়ান কিংবদন্তী ভিভ রিচার্ডস, ইংল্যান্ডের পল কলিংউড, সংযুক্ত আরব আমিরাতের রোহান মুস্তফার।

 

যদিও বাস ডি লিডি একজন প্রফেশনাল ক্রিকেটার, তার বাবা ছিলেন চাকরিজীবি। ইএসপিএন ক্রিকইনফোকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি স্মৃতি রোমন্থন করেন, “তখন (১৯৯৬ সালে) বেতন ছিল না, চুক্তি ছিল না, কিন্তু অনেক আনন্দ ছিল খেলায়। আমরা চাকরি থেকে ছুটি নিয়ে খেলতে আসতাম”।

 

টিম ডি লিডি ২০০৩ ও ২০০৭ বিশ্বকাপেও খেলেছেন।

 

২০০৩ বিশ্বকাপের ফাইনালিস্ট ভারতের বিপক্ষে গ্রুপ পর্বের একটি ম্যাচে টিম ৩৫ রান দিয়ে সাচিন টেন্ডুলকার, রাহুল দ্রাবিড়সহ চার উইকেট নিয়েছিলেন।

 

বড় ব্যবধানে হেরে গেলেও টিম ডি লিডি ম্যান অফ দ্য ম্যাচের পুরস্কার পেয়েছিলেন।

 

 


মন্তব্য লিখুন


সম্পাদক ও প্রকাশক: শাহীনা আজমীন ।। স্বত্ব © বরিশাল নিউজ ২০২৪

Developed By NextBarisal