চোখে মরিচের গুড়া মেরে টাকা ছিনতাই চেষ্টা

বরিশাল নগরীর অগ্রণী ব্যাংক লিমিটেডের সদর রোড শাখায় মঙ্গলবার ব্যাংকের সিঁড়িতে গ্রাহকের চোখে মরিচের গুড়া মেরে ৫ লাখ টাকা ছিনতাই চেষ্টার সময় জনি ডোম (৩৮) নামে একজনকে হাতেনাতে আটক করা হয়েছে ।

কোতোয়ালি মডেল থানার ওসি নুরুল ইসলাম জানান, ছিনতাইয়ের অভিযোগে আটক যুবকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের হয়েছে।

অগ্রণী ব্যাংক সদর রোড শাখার ব্যবস্থাপক (ভারপ্রাপ্ত) সমর রঞ্জন দর্জি বলেন,

আমাদের ব্রাঞ্চের গ্রাহক শাহাবুদ্দিন ৫ লাখ টাকা উত্তোলন করে চলে যাচ্ছিলেন। তারা দুই ভাই একসঙ্গে এসে টাকা উত্তোলন করে মূল রাস্তায় মোটরসাইকেলেও উঠেছেন। তখন ব্যাংকে আগে থেকেই ছদ্মবেশ ধারণ করা ছিনতাইকারী গিয়ে তাদের বলে, আপনাদের কী যেন ভুল হয়েছে। ব্যাংকের ম্যানেজার আপনাদের ডাকছেন। কথা শুনে টাকা উত্তোলন করা সেই গ্রাহক গাড়ি থেকে নেমে যখন ব্যাংকের সিঁড়িতে উঠছিলেন তখন ছিনতাইকারী যুবক তার চোখে মরিচ গুড়া ছুড়ে মারেন।

শাখার ভারপ্রাপ্ত ব্যবস্থাপক বলেন, গ্রাহক শাহাবুদ্দিন বিষয়টি বুঝতে পেরে ওই ছিনতাইকারীকে জাপটে ধরে মাটিতে ফেলে দেন। এরই মধ্যে তার ভাই আমির হোসেন ঘটনাস্থলে চলে আসেন। দুই ভাই ছিনতাইকারীকে আটকে ফেলেন। এরপর ছিনতাইকারীকে ব্যাংকে এনে আটকে থানায় খবর দেওয়া হয়। ব্যাংকে বসে জিজ্ঞাসাবাদে আটক ছিনতাইকারী জনি ডোম স্বীকার করে সে ছিনতাই করতে এসেছিল।

এ বিষয়ে গ্রাহকের ভাই বরিশাল নগরীর চাঁদমারি হাওলাদার ফার্মেসির স্বত্বাধিকারী আমিরুল ইসলাম বলেন, প্রশাসনের কাছে দাবি থাকবে ছিনতাইকারী পুরো চক্রকে খুঁজে বের করার। তারা বলেন,ব্যাংকের নিরাপত্তা আরও বাড়ানো উচিত।

এদিকে বিকালে সিটি করপোরেশনের জনসংযোগ দপ্তর জানিয়েছে, জনি ডোমকে শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে দুই বছর আগে সিটি করপোরেশন থেকে অব্যহতি দেওয়া হয়েছে। তার বিরুদ্ধে কোন অভিযোগের দায় সিটি করপোরেশন নেবে না।

বরিশাল নিউজ/স্টাফ রিপোর্টার