‘সরকারি বরিশাল কলেজ’ নাম নিয়ে কর্মসূচি অব্যাহত

বরিশাল নিউজ।। সরকারি বরিশাল কলেজ এর নাম পরিবর্তন করা এবং না করার দাবি নিয়ে বরিশাল নগরীতে পাল্টাপাল্টি কর্মসূচি পালিত হচ্ছে।

কলেজের প্রাক্তন ও বর্তমান শিক্ষার্থীরা কলেজের নাম পরিবর্তন না করার দাবি জানিয়ে সমাবেশ ও সপ্তাহব্যাপী গণসাক্ষর কর্মসূচি পালন করছে।

অন্যদিকে বাসদ জেলা আহবায়ক কমিটি সরকারি বরিশাল কলেজের নাম অশ্বিনী কুমার দত্তের নামে নামকরণের দাবিতে বিৰোভ সমাবেশ ও জেলা প্রশাসকের কাছে স্মারক লিপি প্রদান করেছে। তাদের দাবি অশ্বিনী কুমারের জমিতে গড়ে উঠা প্রতিষ্ঠানের নাম তার নামে হোক।

মহাত্মা অশ্বিনী কুমার দত্তের নামে কলেজের নামকরণ বাস্তবায়ন কমিটির সংবাদ সম্মেলন-বরিশাল নিউজ

এই দাবিতে গড়ে উঠেছে ১০১ সদস্যের মহাত্মা অশ্বিনী কুমার দত্তের নামে কলেজের নামকরণ বাস্তবায়ন কমিটি। তারা অশ্বিনী কুমার হল চত্বরে বৃহস্পতিবার সংবাদ সম্মেলন শেষে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী ও শিক্ষামন্ত্রী বরাবরে স্মারকলিপি প্রদান করেছে ।

উল্লেখ্য ভারত ভাগের পর মহাত্মা অশ্বিনী কুমার দত্ত ভারতে চলে যান। সেখানে ১৯২৩ সালে মৃত্যুবরণ করেন তিনি। ওই সময় তার সম্মানে অশ্বিনী কুমার হলের নামকরণ হয়।

আরও পড়ুন : ১ আগস্ট থেকে ইতালিতে প্রবেশ বাংলাদেশিদের


পরে তৎকালীন সরকার তার বাড়ী রিকিউজিশন করে । ১৯৬৬ সালে সেই বাড়ীতে প্রতিষ্টা করা হয় ‘বরিশাল নৈশ মহাবিদ্যালয়’। বাংলাদেশ স্বাধীন হওয়ার পর নৈশ মহাবিদ্যালয়টিকে প্রথমে বরিশাল দিবা ও নৈশ কলেজে রুপান্তর করা হয়। পরে নৈশ শাখা বন্ধ করে ‘বরিশাল কলেজ’ নামে প্রতিষ্ঠানটি চালু হয়।

১৯৮৬ সালে এরশাদ সরকার কলেজটিকে জাতীয়করণ করলে নতুন নাম হয় সরকারি বরিশাল কলেজ। এই নামকরণের সময় কোন পক্ষ অশ্বিনী কুমার দত্তের নামে কলেজের নামকরণ দাবি করেননি।
সুশীল সমাজের কয়েক প্রতিনিধির অনুরোধে জেলা প্রশাসক সম্প্রতি অশ্বিনী কুমারের নামে কলেজের নামকরণের একটি প্রস্তাব বরিশাল শিক্ষা বোর্ড চেয়ারম্যানের কাছে পাঠালে এর প্রতিবাদে কলেজেল প্রাক্তন ও বর্তমান শিক্ষার্থীরা আন্দোলন শুরু করেন।

বরিশাল নিউজ/স্টাফ রিপোর্টার