উঞ্চতা ছড়ালো শীতলপাটি

বরিশাল নিউজ।। কবি সতেন্দ্রনাথ দত্তের শীতল করা-ক্লান্তি হরা শীতলপাটি বরিশালের এসংশ্লিষ্ট শিল্পীদের মাঝে ছড়িয়েছে উঞ্চতা। বরিশালের অশ্বিণী কুমার হলে এই শিল্পীদের নিয়ে শনিবার মেলার আয়োজন করে এনজিও রান। উদ্দেশ্য শীতলপাটি শিল্প ও শিল্পীদের মধ্যস্বত্বভোগীর হাত থেকে বাঁচানো আর শীতলপাটির ব্যাপক প্রচার।

স্টল গুলো পরিদর্শণ করেন জেলা প্রশাসক-বরিশাল নিউজ
স্টল গুলো পরিদর্শণ করেন জেলা প্রশাসক-বরিশাল নিউজ

নয়টি স্টল নিয়ে মেলায় অংশ নেন মূলধন আর পৃষ্ঠপোষকতার অভাবে বিলুপ্ত হতে বসা শীতলপাটি শিল্পীরা। তাদের অনেকেই দিনের শুরুতে এই প্রতিবেদকের কাছে আশঙ্কা প্রকাশ করেন ‌’বিক্রি হবে তো?’। কিন্তু দিনশেষে স্টলগুলো থেকে শুধু শীতলপাটিই বিক্রি হয়েছে ৩৫ থেকে ৪০ টি আর অন্যান্য সৌখিন জিনিসতো আরেকটু বেশি। প্রতিটি শীতলপাটির সাধারণ মূল্য কমবেশি এক হাজার টাকা।
এ নিয়ে খুশি কাঠালিয়া গ্রামের শীতলপাটি শিল্পী নান্টু দত্ত। তিনি বলেন, ৪০০ টাকা খরচ করে ৫/৬ দিন সময় নিয়ে বোনা হয় একটি শীতল পাটি। আমরা অন্যসময়ে পাইকারদের কাছে বিক্রি করে পাই সর্বোচ্চ ৬০০ টাকা। তাতে দেখা যায় দিনে মজুরি পরে ২৫ টাকা। কিন্তু আজ আমরা ন্যায্যমূল্য পেলাম।
তাদের এই উঞ্চতা আরেকটু বাড়িয়েছেন মেলার প্রধান অতিথি জেলা প্রশাসক মো. হাবিবুর রহমান। তিনি বরিশাল অঞ্চলের শীতলপাটি শিল্পের সাথে জড়িত জনগোষ্ঠীর পেশাগত উৎকর্ষকতা সৃষ্টির জন্য প্রশাসনিকভাবে প্রচেষ্টা চালাবেন বলে কথা দেন । এলক্ষ্যে এখানকার শীতলপাটি শিল্পীদের একটি সাংগঠনিক কাঠামো দাঁড় করাতে অনুরোধ করেন। এছাড়াও স্থানীয় শীতলপাটি সংগ্রহ করে বরিশালে আসা অতিথিদের উপহার দেওয়াসহ সার্কিট হাউজের প্রতিটি কক্ষে শীতলপাটির টিস্যুবক্স এবং প্রতিটি কক্ষের চাবির রিং দেবেন বলে জানান । পাশাপাশি অক্টোবর মাসের উন্নয়ন মেলায় শীতলপাটি শিল্পীদের জন্য তিনি একটি স্টল বিনামূল্যে বরাদ্দেরও ঘোষণা দেন জেলা প্রশাসক।

শীতলপাটি বুনছেন একজন শিল্পী-বরিশাল নিউজ
শীতলপাটি বুনছেন একজন শিল্পী-বরিশাল নিউজ

রাজাপুর, ঝালকাঠী, কাউখালীর পাটিয়ালরা আলাদা ৩টি স্টলে তাদের প্রস্ততকৃত বিভিন্ন উপকরণ প্রদর্শন ও বিক্রি করেন। মোত্রা গাছ থেকে আঁশ কেটে বিভিন্ন প্রক্রিয়ার মাধ্যমে একটি পর্যায়ে কিভাবে শীতলপাটি বুণা হয় তা দেখান তারা। এসময় উপস্থিত দর্শণার্থীরা আগ্রহ নিয়ে সেগুলো দেখেন।
মেলা আয়োজক রানের নির্বাহী পরিচালক মো. রফিকুল আলম বরিশাল নিউজকে বলেন, মেলায় ভালোই সাড়া ছিল। সবচেয়ে খুশির খবর হচ্ছে শীতলপাটি শিল্পীদের মধ্যস্বত্বভোগীদের হাত থেকে বাচাঁনোর একটি অনন্য উদ্যোগ হয়ে রইলো এই মেলা।
বরিশাল নিউজ/শাওন