বাবুগঞ্জ উপজেলার দেহেরগতি ইউনিয়নের রাকুদিয়া গ্রামে এক গৃহবধুর রক্তাক্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। আর মারুফার স্বামী মিলন হাওলাদারকে একই বাড়ীতে হাত-পা বাধা অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে।

স্বজনরা বলেছে বাড়ীতে ডাাকাতি হয়েছে। পুলিশ বলেছে পারিবারিক বিরোধ ছিল। তদন্ত চলছে।

বাবুগঞ্জ থানার ওসি মাহবুবুর রহমান জানিয়েছেন গতরাত (সোমবার) দেড়টার দিকে পুলিশ মরদেহ ও আহতকে উদ্ধার করে। ওসি বলেন, আহত মিলন বাবুগঞ্জের ইট-সিমেন্টের ব্যবসায়ী।

মিলন হাওলাদারের ভাইয়ের ছেলে আরমান খান বলেন, মাঝরাতে খবর পাই চাচার ঘরে ডাকাত ঢুকেছে। সেখানে গিয়ে দেখি আমার চাচি রক্তাক্ত অবস্থায় মেঝেতে পরে রয়েছে আর চাচা হাতপা বাধা অবস্থায় পরে আছেন। আমরা চাচাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে আসি এবং পুলিশে খবর দেই।

মিলন হাওলাদার দেহেরগতি ইউনিয়ন বিএনপির সদস্য সচিব বলে জানা গেছে।

বরিশালনিউজ/ বাবুগঞ্জ