বরিশাল প্রতিনিধি।। বরিশাল মেট্রোপলিটন আদালতে ম্যাজিষ্ট্রেটের কাছে দোষ স্বীকার করে জবানবন্দি দিয়েছে আটক তিন ধর্ষনকারী। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা আসাদুজ্জামান জানিয়েছেন, গনধর্ষনের প্রধান ধর্ষনকারী ছাত্রদল নেতা রায়হানউল ইসলাম বাব্বি , মানিক শেখ ও সাইফুল ইসলামসহ তিনজনকে পৃথক পৃথকভাবে ঘন্টাকাল ব্যাপী জিজ্ঞাসাবাদ শেষে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি রেকর্ড করেছেন মেট্রোপলিটন ম্যাজিষ্ট্রেট আনিছুর রহমান ।
এরআগে কোতয়ালী মডেল থানার ওসি তদন- ও এই ধর্ষন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা মোঃ আসাদুজ্জামান গতকাল শনিবার আদালতে ম্যাজিষ্ট্রেটের খাস কামরায় হাজির করেন।
কলেজ ছাত্রী ধর্ষনের ঘটনায় ধষিতার মা ময়না বেগম শুক্রবার রাতে বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করে।
বরিশাল কোতয়ালী মডেল থানা পুলিশ এপর্যন্ত প্রধান আসামীসহ চারজনকে আটক করেছে।
উল্লেখ, বরিশাল নগরীর কাশিপুরে কলেজ পড়ুয়া তরুণীকে শুক্রবার একটি ছাত্রাবাসে ধর্ষণ করা হয়।
এদিকে বিএম কলেজ এলাকার একাধিক সূত্র নিশ্চিত করেছে যে, রাব্বি মল্লিক বিএম কলেজ এলাকার ছিনতাই কর্মকাণ্ডে জড়িত। তার বাড়ি বিএম কলেজের সামনে হওয়ার সুবাদে তিনি বিএম কলেজের ছাত্র-ছাত্রীদের জিম্মি করে নানা সময় অর্থ আদায় থেকে শুরু বিভিন্ন অপকর্ম করতেন। তার বিরুদ্ধে বরিশাল কোতোয়ালি মডেল থানায় একাধিক মামলা রয়েছে। এছাড়া তিনি বরিশালের একজন চিহ্নিত ছিনতাইকারী হিসেবেই পুলিশের কাছে বেশী পরিচিত। গ্রেপ্তারকৃত অপর আসামি সাইফুল ইসলাম সজীব ২০নং ওয়ার্ড এলাকার চিহ্নিত ইয়াবা বিক্রেতা। তার বিরুদ্ধেও স্থানীয় সূত্রে পাওয়া গেছে নানা অভিযোগ।
বরিশাল নিউজ/শামীম